জলাবদ্ধতা নিরসনে পানিতে দাড়িয়ে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করল ভবদহবাসী

0
2
জলাবদ্ধতা নিরসনে পানিতে দাড়িয়ে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করল ভবদহবাসী

অরজিৎ মন্ডল: যশোরে ভবদহ অঞ্চলের জলাবদ্ধতা নিরসনে টাইডাল রিভার ম্যানেজমেন্ট (টিআরএম) প্রকল্প এবং আমডাঙ্গা খাল সংস্কার,বাস্তবায়নের দাবিতে মানববন্ধন করেছে ভবদহ পানি নিষ্কাশন সংগ্রাম কমিটি।

সোমবার (০৫-ই অক্টোবর) সকাল ১১টার যশোর অভয়নগর উপজেলার মশিয়াহাটী বহুমুখী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের মাঠে আয়োজিত মানববন্ধনে ভবদহসহ আশপাশের এলাকার সহস্রাধিক বাসিন্দা অংশ নেন।
জলাবদ্ধতা নিরসনে ভবদহ এলাকায় টিআরএম চালু,আমডাঙ্গা খাল সংস্কার,জলাভূমি করার চক্রান্ত প্রতিহত , জলপ্রাবাহে প্রতিবন্ধকতা অপসারণ সকল নদী ও খাল পুনরুদ্ধার,ভবদহ সুইস গেট ২১ও ৯ ভেন্টের মাঝ দিয়ে রাসরি নদীতে সংযোগের দাবীতে জলের মধ্যে মানববন্ধন করে বাস্তবায়নের জোর দাবি জানান তারা।

এ মানববন্ধনে বক্তারা বলেন- দীর্ঘ ৪০ বছর ভবদহের মানুষ জলাবদ্ধতার শিকার হয়ে মানবেতর জীবন-যাপন করছে। যশোরের অভয়নগর, মনিরামপুর, কেশবপুরসহ আশপাশের গ্রামের ২ লাখ মানুষ জলাবদ্ধতায় ভুগছে। পশু ও মানুষে একত্রে বসবাস করছে। বন্ধ হয়েছে চাষাবাদ, নেই জীবিকা উপার্জনের পথ। মেলেনি কোন ত্রাণ বা সরকারি সহায়তা।

পানি উন্নয়ন বোর্ডের গাফিলতীর কারণে ভবদহ এখন মরণ ফাঁদে পরিণত হয়েছে। পনি সরান, নইলে আমাদেরকে মেরে ফেলেন। ভবদহের জলাবদ্ধতা নিরসনে অবিলম্বে টিআরএম চালু, আমডাঙ্গা খাল প্রসস্থকরণ ও টেকা, শ্রীহরি নদীর খনন, স্লুইচ গেটে বৈদ্যুতিক সেচ পাম্প স্থাপন, ত্রাণের ব্যবস্থা করা, সেচ ব্যবস্থার মাধ্যমে আসন্ন বেরো মৌসুমে কৃষকের চাষের ব্যবস্থা করা সহ দ্রুত বাস্তবায়নের দাবি জানান তারা।

এমন পরিস্থিতিতে নতুন করে উদ্বেগ তৈরি হয়েছে নাগরিকদের মধ্যে। এ দাবি মানা না হলে ভোট বর্জনের সিদ্ধান্তও তারা নিতে পারে। তাদের দাবি মানা না হলে আগামী দিনে তারা আরও বৃহত্তর আন্দোলনে নামবেন বলে সাফ জানিয়েছেন।

ভবদহ পানিনিষ্কাশন সংগ্রাম কমিটির উপদেষ্টা ইকবাল কবির জাহিদ বলেন, পানি উন্নয়ন বোর্ডের (পাউবো) ব্যর্থতায় ভবদহের শতাধিক গ্রাম তলিয়ে গিয়েছে।ক্ষতিগ্রস্ত সব পরিবারের খাদ্যনিরাপত্তা নিশ্চিত করতে হবে এবং ক্ষতিগ্রস্ত ঘর পুনর্নির্মাণ করতে হবে। তার স্থায়ী সমাধানের জন্য বিল কপালিয়ায় টিআরএম জোয়ারধারার চালু করতে হবে। এই দাবি আদায়ের লক্ষ্যে সোমবার যশোর মশিয়াহাটীতে মানববন্ধন করেন।
মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন, পানি নিষ্কাশন সংগ্রাম কমিটির যুগ্ম আহবায়ক মুক্তিযোদ্ধা গাজী আব্দুল হামিদ ও রণজিৎ কুমার বাওয়ালি। কমিটির প্রধান উপদেষ্টা ইকবাল কবীর জাহিদ, সদস্য সচিব চৈতন্য পাল, উপদেষ্টা হাচিনুর রহমান,৫নং হরিদাসকাটি সুকৃতি রায়, সংগ্রাম কমিটির সদস্য সচীব কার্ত্তিক বকশী।

ভবদহ পানি নিষ্কাষণ আন্দোলন কমিটির ব্যানারে মানবন্ধনে অংশগ্রহণকারীরা জানান, প্রতিবছর বর্ষা মৌসুমে প্রায় প্রতিটি বাড়ি পানিবন্দী হয়ে পড়ে। তলিয়ে যায় বাড়ি-ঘরসহ মাঠের সব ফসল। অসহায় অধিকাংশ মানুষকে ঘরছাড়া হতে হয়। কিন্তু এ সমস্যার স্থায়ী সমাধানের জন্য দীর্ঘদিন ধরে বিল কপালিয়া বা ভবদহ সংলগ্ন অন্য কোন বিলে টিআরএম বাস্তবায়নের দাবি জানালেও সে দাবি উপেক্ষিত হচ্ছে। এর পরিবর্তে অপরিকল্পিতভাবে নদী থেকে পলি অপসারণ করা হচ্ছে। যা আবার নদীতে গিয়ে পড়ছে। তাই অবিলম্বে টিআরএম বাস্তবায়নের দাবি জানান আন্দোলনকারীরা।
এছাড়াও গত রবিবার (৪ অক্টোবর) সকাল ১১ টায় অভয়নগর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্যালয়ের সামনে অবস্থান ধর্মঘটের ডাক দেয় ভবদহ পানি নিস্কাশন আন্দোলন কমিটি। অবস্থান ধর্মঘটে অংশ নেন অভয়নগর ও মণিরামপুর উপজেলার ৮টি ইউনিয়নের পানিবন্দি হাজার হাজার নারী-পুরুষ।ভবদহের পানিবন্দি মানুষের অবস্থান ধর্মঘট ও স্মারকলিপি পেশ করেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here