লোহাগাড়ায় নিখোঁজের ১ মাস পর জাপা নেতার লাশ উদ্ধার

0
44
লোহাগাড়ায় নিখোঁজের ১ মাস পর জাপা নেতার লাশ উদ্ধার

অমিত কর্মকার, লোহাগাড়া (চট্টগ্রাম ) প্রতিনিধি: চট্টগ্রামের লোহাগাড়ায় নিখোঁজের একমাস পর জাতীয় পার্টি (জাপা) নেতা ও ব্যবসায়ী আনোয়ার হোসেনের অর্ধ গলিত লাশ উদ্ধার করেছে থানা পুলিশ। ২৯ জানুয়ারি (শুক্রবার) দিবাগত রাত ১২টায় উপজেলা সদর ইউনিয়নের দরবেশহাট সওদাগর পাড়ার তার নিজের গরুর খামারের পার্শ্বে মাটি চাপা অবস্থায় আনোয়ার হোসেনের লাশটি উদ্ধার করা হয়। নিহত আনোয়ার হোসেন উপজেলার সদর ইউনিয়নের দরবেশ হাট সওদাগর পাড়ার মৃত আহমদ হোসেনের পুত্র এবং তিনি উপজেলা জাতীয় পার্টির সদস্য ও জাতীয় যুব সংহতি লোহাগাড়া উপজেলা শাখার সিনিয়র সহ-
সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।

সংশ্লিষ্ট সুত্র জানা যায়, গত ৩০ ডিসেম্বর বিকেলে ব্যবসায়িক কাজে লোহাগাড়া সদর ইউনিয়নের দরবেশহাট সওদাগর পাড়ায় তার নিজস্ব খামারে যান আনোয়ার। খামার থেকে রাত ৮টার দিকে বটতলীস্থ ভাড়া বাসায় ফেরার পথে নিখোঁজ হন তিনি। নিখোঁজের পর থেকে তার ব্যবহৃত মোবাইল ফোনটিও বন্ধ পাওয়া
যায়। পরে আনোয়ার হোসেনের ছোট ভাই মোহাম্মদ সেলিম বাদী হয়ে লোহাগাড়া থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি ১৪৪০) দায়ের করেন। এর পরিপ্রেক্ষিতে ঘটনার সাথে জড়িত ফার্মের কর্মচারী দরবেশ হাট সওদাগর পাড়া এলাকার ইদ্রিসের পুত্র আসিফ ও কর্মচারী কুতুবপালং রোহিঙ্গা ক্যাম্পের আবদুস সালামের পুত্র আনচার উল্লাহ কে আটক করে পুলিশ। উদ্ধারে কাজে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ
আহসান হাবীব জিতু, সাতকানিয়া সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোঃ জাকারিয়া রহমান জিকুর নেতৃত্বে এ অভিযান পরিচালনা করেন লোহাগাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জাকের হোসাইন মাহমুদ, পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মুহাম্মদ রাশেদুল ইসলাম ও এসআই পার্থ সারথী হাওলাদারসহ আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী
বাহিনীর সদস্যরা।

লোহাগাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জাকের হোসাইন মাহমুদ জানান, আনোয়ার নিখোঁজের পর গত ২১ জানুয়ারি অজ্ঞাতনামা অপহরণকারীদের বিরুদ্ধে অপহরণ মামলা দায়ের করেন তার স্ত্রী নার্গিস আক্তার। মামলার পরে পুলিশ বিভিন্ন সোর্স ও প্রযুক্তির মাধ্যমে নিখোঁজ আনোয়ারকে উদ্ধারের চেষ্টা চালায়।
সোর্স ও বিভিন্ন প্রযুক্তির মাধ্যমে পুলিশ নিশ্চিত হয়ে আসিফ ও কর্মচারী রোহিঙ্গা আনচার উল্লাহ নামের ফার্মের দুজন কর্মচারীকে গ্রেফতার করে। গ্রেফতারকৃত আনসার উল্লাহর স্বীকারোক্তি অনুযায়ী আনোয়ারের লাশ মাটিচাপা অবস্থায় আছে বলে আমাদেরকে নিশ্চিত করেন। আনসার উল্লাহ’র স্বীকারোক্তি মতে
দরবেশহাট আনোয়ারের গরুর ফার্মের পার্শ্বে মাটি চাপা অবস্থায় তার লাশ আমরা উদ্ধার করি। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। এ ঘটনায় আরও তদন্ত চলছে বলেও তিনি জানান।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here